১লা নভেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ, রবিবার, ১৬ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১৪ই রবিউল আউয়াল, ১৪৪২ হিজরি

[gtranslate]

শিরোনামঃ-

মায়ের সংবাদ সম্মেলন- আমাকে জেলে নিয়ে মাহমুদুরকে মুক্তি দিন

Khorshed Alam Chowdhury

আপডেট টাইম : এপ্রিল ২৩ ২০১৬, ০৩:৫০ | 645 বার পঠিত

11041_b5 নয়া আলো-

আমার দেশ-এর ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক কারাবন্দি মাহমুদুর রহমানের মুক্তি দাবি করেছেন তার মা অধ্যাপিকা মাহমুদা বেগম। তিনি প্রধানমন্ত্রীর প্রতি এ দাবি জানিয়ে বলেছেন, দীর্ঘদিন জেলে আটক রেখেও পরিতৃপ্ত না হয়ে থাকলে আমাকে জেলে নেয়ার বিনিময়ে আমার নিরাপরাধ সন্তানকে মুক্তি দিন। গতকাল বিকালে জাতীয় প্রেস ক্লাবে মাহমুদুর রহমানের বিরুদ্ধে শ্যোন অ্যারেস্ট ও রিমান্ডের প্রতিবাদে আমার দেশ পরিবারের পক্ষ থেকে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এই দাবি জানান। অধ্যাপিকা মাহমুদা বেগম বলেন, বাংলাদেশের একজন বিবেকবান মানুষও কি বিশ্বাস করবেন শফিক রেহমান ও মাহমুদুর রহমান মিলে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র প্রবাসী সজীব ওয়াজেদ জয়কে অপহণের পরিকল্পনা করবেন? দুজনই কি একেবারে নির্বোধ? বাংলাদেশের জনগণ তো জানে সজীব ওয়াজেদ জয়সহ প্রধানমন্ত্রীর পরিবারের সকল সদস্য এসএসএফ নিরাপত্তায় থাকেন। সেই এসএসএফ এবং ভিভিআইপি নিরাপত্তার মধ্যে অপহরণের কল্পকাহিনী কি আদৌ বিশ্বাসযোগ্য? আমি দৃঢ়তার সঙ্গে বলতে চাই প্রধানমন্ত্রীর পুত্র সংশ্লিষ্ট কোনো ষড়যন্ত্রের সঙ্গে আমার ছেলের কোনো সংশ্রব নেই। মাহমুদুর রহমানের বিরুদ্ধে নতুন ষড়যন্ত্র শুরু হয়েছে বলে তিনি উল্লেখ করে কান্নাজড়িৎ কণ্ঠে বলেন, ২০০৬ সালে মাহমুদুর রহমান সরকারি দায়িত্ব পালন সমাপ্ত করে আজ পর্যন্ত একবারের জন্যও মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে যাননি। পুলিশ ২০১১ সালের কল্প কাহিনী সাজিয়েছে। প্রধানমন্ত্রী এবং তার পুত্রের বক্তব্য এবং মিডিয়ার খবরের বরাত দিয়ে পুলিশের দাবি অনুযায়ী মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের জাস্টিস ডিপার্টমেন্ট নাকি কথিত অপহরণের বিষয়ে বাংলাদেশ সরকারের নিকট তথ্য প্রদান করেছে। তিনি বলেন, আমি নিশ্চিত যে জাস্টিস ডিপার্টমেন্ট যদি কোনো তথ্য বাংলাদেশ সরকারের নিকট প্রদান করেও থাকে সেখানে আমার ছেলের নাম নেই।
তিনি বলেন, ২০১৩ সালের ১১ই এপ্রিল আমার দেশ কার্যালয় থেকে মাহমুদুর রহমানকে গ্রেপ্তার করে নিয়ে যায় পুলিশ। এখন পর্যন্ত আমার ছেলে জেলখানায় আছে। তার সঙ্গে আমি জেলখানায় সাক্ষাৎ করেছি। তার শরীরের অবস্থা খুব খারাপ। তিনি মাহমুদুর রহমানের বিরুদ্ধে একের পর এক মিথ্যা মামলা দায়ের প্রসঙ্গে একটি বিচার বিভাগীয় তদন্ত করার জন্য প্রধান বিচারপতির প্রতি আহ্বান জানান। তিনি আরও বলেন, চলতি বছরের বছরের ১৪ই ফেব্রুয়ারি মাননীয় প্রধান বিচারপতি নেতৃত্বে আপিল বিভাগ সকল মামলায় তাকে জামিন দেয়। সর্বশেষ ৬ই এপ্রিল কোতোয়ালি থানার একটি মামলায় তাকে জড়ানো হয়। মাহমুদুর রহমানের বিরুদ্ধে বর্তমানে কতটি মামলা রয়েছে সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের উত্তরে তিনি বলেন, তার বিরুদ্ধে ৮০টি মামলা করা হয়েছে। ওই ৮০টি মামলায় উচ্চ আদালত থেকে জামিন পেয়েছে। ২টি মামলায় মাহমুদুর রহমান এখনও জামিন পায়নি। জয়ের মামলার শ্যোন অ্যারেস্ট দেখানো মামলায় তার এখন শুনানি হয়নি। সংবাদ সম্মেলনে এসময় আরও উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট কলামিস্ট ও কবি ফরহাদ মজহার, মাহমুদুর রহমানের আইনজীবী অ্যাডভোকেট সানাউল্লাহ মিয়া, দৈনিক আমার দেশ-এর নির্বাহী সম্পাদক সৈয়দ আবদাল আহমেদ ও বার্তা সম্পাদক জাহেদ চৌধুরী।

Please follow and like us:

পাঠক গনন যন্ত্র

  • 4168327আজকের পাঠক সংখ্যা::
  • 11এখন আমাদের সাথে আছেন::

সর্বশেষ খবর

এ বিভাগের আরও খবর

প্রধান সম্পাদক- খোরশেদ আলম চৌধুরী, সম্পাদক- আশরাফুল ইসলাম জয়,  উপদেষ্টা সম্পাদক- নজরুল ইসলাম চৌধুরী।

ঢাকা অফিস : রোড # ১৩, নিকুঞ্জ - ২, খিলক্ষেত, ঢাকা-১২২৯,

সম্পাদক - ০১৫২১৩৬৯৭২৭,০১৮৮০৯২০৭১৩

Email-dailynayaalo@gmail.com

প্রধান সম্পাদক কর্তৃক  প্রচারিত ও প্রকাশিত

সাইট উন্নয়নেঃ ICTSYLHET