১২ই আগস্ট, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ, বুধবার, ২৮শে শ্রাবণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২১শে জিলহজ, ১৪৪১ হিজরি

[gtranslate]

শিরোনামঃ-
  • হোম
  • সকল সংবাদ
  • বরিশাল শেবাচিমে নারী ইন্টার্ন চিকিৎসককে গভীর রাতে বিরক্ত করা নিয়ে চিকিৎসক-কর্মচারী মুখোমুখি

বরিশাল শেবাচিমে নারী ইন্টার্ন চিকিৎসককে গভীর রাতে বিরক্ত করা নিয়ে চিকিৎসক-কর্মচারী মুখোমুখি

খোকন হাওলাদার, গৌরনদী,বরিশাল করেসপন্ডেন্ট।

আপডেট টাইম : জুলাই ০৩ ২০২০, ১৪:৪৮ | 659 বার পঠিত

বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ (শেবাচিম) হাসপাতালের এক নারী ইন্টার্ন চিকিৎসককে গভীর রাতে বিরক্ত করা নিয়ে হাতাহাতির ঘটনা ঘটেছে সেখানে। করোনা ইউনিটে দায়িত্ব পালন করা ওয়ার্ড বয় (৪র্থ শ্রেণীর কর্মচারী) মোঃ দিদারুল ইসলাম ও মোঃ নুরুল ইসলাম অভিযোগ করেন গত ৩০ জুন রাতে তাদেরকে মারধর করেন কতিপয় ইন্টার্ন চিকিৎসক। মারধরের কারু হিসেবে তাদেরকে নাকি জানানো হয়েছে করোনা আক্রান্ত এক নারী চিকিৎসকের কেবিনে গভীর রাতে বিরক্ত করার শাস্তি দেয়া হচ্ছে তাদের।

এ ঘটনার প্রতিবাদে গতকাল বৃহস্পতিবার বেলা ১০ টায় বিক্ষোভ কর্মসূচী পালন করেছেন হাসপাতালটির ৪র্থ শ্রেণীর কর্মচারীরা। তবে মারধরের অভিযোগ সম্পূর্ণ অস্বীকার করেছেন অভিযুক্ত চিকিৎসকদের এক নেতা। আর মারধরের ঘটনা না জানলেও উল্টো ঐ ওয়ার্ড বয়দের বিরুদ্ধে অশালীন আচরণের অভিযোগ তুলেছেন ঘটনার কেন্দ্রীয় চরিত্রের সেই নারী ইন্টার্ন চিকিৎসক।

ইন্টার্ন চিকিৎসকদের হাতে লাঞ্ছিত হওয়ার অভিযোগ করা মোঃ দিদারুল ইসলাম জানান, গত ৩০ জুন রাতে শেবাচিমের করোনা ওয়ার্ডে ডিউটিরত অবস্থায় তাকে ও তাঁর সহকর্মী মোঃ নুরুল ইসলামকে ফোন করে বাইরে ডাকে ইন্টার্ন চিকিৎসক ডাঃ সজল পান্ডে ও ডাঃ আরিফুল ইসলাম। পরে সেখান থেকে তাদের জোর করে মোটরসাইকেলে তুলে নিয়ে ইন্টার্ন হোস্টেলের ২য় তলায় নিয়ে যাওয়া হয়।

সেখানে একটি কক্ষে তাদের আটকে চেয়ার ও টেবিলের ভাঙা পায়া দিয়ে মারধর করেন ৬ থেকে ৭ জন। এসময় আহত দুজন তাদের অপরাধ জানতে চাইলে বলা হয় তারা দুজন গত রাতে করোনা ইউনিটে চিকিৎসাধীন এক নারী চিকিৎসককে বিরক্ত করেছেন। এই অপরাধের শাস্তি দেয়া হচ্ছে। এসময় আহত দুজনকে এই বলে হুমকি দেয়া হয় যে, মারধরের ঘটনা প্রকাশ করলে তাদেরকে হত্যা করে গুম করে দেয়া হবে।

কিন্তু এসকল অভিযোগ অস্বীকার করেছেন অভিযুক্ত ডাঃ সজল পান্ডে। তিনি বলেন, কোনো ওয়ার্ড বয়কে মারধরের ঘটনা আমার জানা নেই। তবে আমাদের নারী সহকর্মী ডাঃ সুমাইয়াকে গভীর রাতে দুজন ওয়ার্ডবয় খারাপভাবে বিরক্ত করেছিলেন। এ ব্যাপারে উক্ত সহকর্মী হাসপাতালের পরিচালক বরাবর অভিযোগও দায়ের করেছেন। সেই অভিযোগের সূত্র ধরে দিদার নামে এক ওয়ার্ড বয়ের সঙ্গে ফোনে কথা হয়েছে।

আর যাকে ঘিরে এত ঘটনা সেই ডাঃ সুমাইয়া আফরিন জানান, গত ২৮ জুন থেকে করোনা আক্রান্ত হয়ে শেবাচিমের করোনা ইউনিটের একটি কেবিনে চিকিৎসারত আছেন তিনি। গত ২৯ জুন রাত ২ টার দিকে দুজন ব্যক্তি হঠাৎ তার কেবিনের দরজায় জোরে ধাক্কা দেয়। এসময় ভিতর থেকে তিনি কে ধাক্কা দিয়েছে প্রশ্ন করলে কেউ উত্তর দেয় নি। কিছুক্ষণ পরে একজন বলেন তারা ওয়ার্ড বয় এবং তাদের এক সহকর্মীকে খুঁজতে এসেছেন। ডাঃ সুমাইয়া তখন কেবিনের ভিতর থেকে নিজের পরিচয় জানালে তারা চলে যায়।

কিন্তু রাত ৩ টা ১৯ মিনিটে পুনরায় একজন এসে দরজা ধাক্কা দিয়ে কেবিনের ভিতরের অক্সিজেন সিলিন্ডার চেক করার কথা বলে। কিন্তু এবার তিনি ভয় পেয়ে যান এবং সিলিন্ডার চেক করার দরকার নেই বলে জানান। এছাড়া এসময় তিনি তাঁর অন্য চিকিৎসক সহকর্মীদের মোবাইলে ফোন দিয়ে ঘটনাটি জানান। এরই মধ্যে রাত ৪ টায় আবার একজন এসে তাঁর কেবিনের দরজায় টোকা দিয়ে যায়।

তিনি আরো জানান, পরদিন সকালে যখন কেবিন থেকে বেরিয়ে গোসল করার জন্য বাথরুমে যান তখন পিপিই পরা একজন ওয়ার্ড বয় তাঁর পিছু নেন। গোসল করে বেরিয়ে তিনি দেখতে পান সেই ওয়ার্ড বয় বাথরুমের দরজার একদম সামনে দাঁড়িয়ে আছেন। এসময় পাশ কাটিয়ে যাবার সময় ওয়ার্ড বয় তাকে অশালীন অঙ্গভঙ্গী প্রদর্শন করেন।

পরবর্তীতে রাতে কোন কোন ওয়ার্ড বয় ডিউটিতে ছিল তাদের ব্যাপারে অনুসন্ধান করেন ডাঃ সুমাইয়া। অনুসন্ধানে দিদার ও নুরুল ইসলামের নাম জানতে পারেন। সেইদিন তিনি পুরো ঘটনা উল্লেখ করে হাসপাতালের পরিচালককে জানান এবং এ ধরনের পরিস্থিতি থেকে উত্তরু কামনা করেন।

ডাঃ সুমাইয়া আফরিন বলেন, করোনা ইউনির্টে ভর্তি হবার পর থেকেই উল্লেখিত এই ওয়ার্ড বয়রা বিভিন্নভাবে তার পিছু নেন। নানা অজুহাতে তাঁর কেবিনে আসার চেষ্টা করেন। তিনি উল্লেখ করেন, এখানে চিকিৎসা নিতে আসা আরো কয়েকজন নারী রোগীর সঙ্গে কথা বলে তিনি জেনেছেন এই ওয়ার্ড বয়রা বিভিন্ন সময়ে নানা অজুহাতে তাদের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ হবার চেষ্টা করেছেন।

 

Please follow and like us:

পাঠক গনন যন্ত্র

  • 4011021আজকের পাঠক সংখ্যা::
  • 2এখন আমাদের সাথে আছেন::

সর্বশেষ খবর

এ বিভাগের আরও খবর

প্রধান সম্পাদক- খোরশেদ আলম চৌধুরী, সম্পাদক- আশরাফুল ইসলাম জয়,  উপদেষ্টা সম্পাদক- নজরুল ইসলাম চৌধুরী।

ঢাকা অফিস : রোড # ১৩, নিকুঞ্জ - ২, খিলক্ষেত, ঢাকা-১২২৯,

সম্পাদক - ০১৫২১৩৬৯৭২৭,০১৮৮০৯২০৭১৩

Email-dailynayaalo@gmail.com

প্রধান সম্পাদক কর্তৃক  প্রচারিত ও প্রকাশিত

সাইট উন্নয়নেঃ ICTSYLHET