৪ঠা ডিসেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ, শুক্রবার, ১৯শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১৮ই রবিউস সানি, ১৪৪২ হিজরি

[gtranslate]

শিরোনামঃ-

কামারখন্দে আগাম কপি চাষ; লাভের আশায় কৃষক

ওমর ফারুক ভূঁইয়া, কামারখন্দ,সিরাজগঞ্জ করেসপন্ডেন্ট ।

আপডেট টাইম : নভেম্বর ২১ ২০২০, ২১:৩৮ | 620 বার পঠিত

সিরাজগঞ্জের কামারকন্দে বন্যা ও বিভিন্ন দুর্যোগ কাঁটিয়ে প্রান্তিক কৃষকরা লাভের আশায় শীত মৌসুমে আগাম হাইব্রিট জাতের ফুলকপি ও বাঁধাকপি চাষে করে লাভের স্বপ্ন দেখছেন তাঁরা। অল্প কয়েকজন কৃষক বিক্রি শুরু করলেও ১০ থেকে ১০ দিনের মধ্যেই পুরোদমে বিক্রি শুরু করতে পারবে সব কৃষকরা।
যে সব কৃষকের নিজস্ব জমি নেই তারাও অন্যের জমি লিজ (কন্ট্রাক) নিয়ে আগাম হাইব্রিট জাতের কপি সহ বিভিন্ন জাতের সবজি চাষে পরিবার-পরিজন নিয়ে খেতে ব্যস্ত সময় পাড় করছেন।
সরেজমিনে উপজেলার বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা গেছে, চলতি মৌসুমে কোন জমি আর পতিত নেই। বিস্তৃর্ণ জমিতে এখন শোভা পাচ্ছে সবুজের সমাহার। উপজেলার ভদ্রঘাট ইউনিয়নের নয়া পাড়া, চর- নুরনগর, গারাবাড়ি,বেলাই, ধমচি ও বিয়ারা সহ শত শত কৃষক জমিতে ফুলকপি ও বাঁধাকপিসহ বিভিন্ন প্রকার সবজির চাষ হয়েছেন।
ভদ্রঘাট ইউনিয়নের কৃষক নুরনাগর গ্রামের কৃষক আব্দুল সাত্তার, হাসেম আলী ও গারাবাড়ি গ্রামের আব্দুল লতিফ ও কেতারু মামুদ জানান, নানা দুর্যোগ কাঁটিয়ে কৃষি বিভাগের পরামর্শে ফুলকপি-বাঁধাকপি আগাম চাষ করেছি। তারা প্রত্যেকেই কেউ দেড় বিঘা আবার কেউ দুই থেকে তিন বিঘা জমিতে ফুলকপি লাগিয়েছেন।
তারা আরও জানান প্রতি বিঘা ফুলকপি-বাঁধাকপি চাষে খরচ হয় ১৫ থেকে ২০ হাজার টাকা। এ বছর ফুলকপি ও বাঁধাকপির বাম্পার ফলন ও ভাল দাম থাকায় প্রতি বিঘায় ৮০ হাজার থেকে ১ লাখ টাকা বিক্রি করা যাবে। কয়েকদিন পরেই বিক্রি শুরু হবে বলে আশা করছেন তারা।
Please follow and like us:

পাঠক গনন যন্ত্র

  • 4223812আজকের পাঠক সংখ্যা::
  • 4এখন আমাদের সাথে আছেন::

সর্বশেষ খবর

এ বিভাগের আরও খবর

প্রধান সম্পাদক- খোরশেদ আলম চৌধুরী, সম্পাদক- আশরাফুল ইসলাম জয়,  উপদেষ্টা সম্পাদক- নজরুল ইসলাম চৌধুরী।

ঢাকা অফিস : রোড # ১৩, নিকুঞ্জ - ২, খিলক্ষেত, ঢাকা-১২২৯,

সম্পাদক - ০১৫২১৩৬৯৭২৭,০১৮৮০৯২০৭১৩

Email-dailynayaalo@gmail.com

প্রধান সম্পাদক কর্তৃক  প্রচারিত ও প্রকাশিত

সাইট উন্নয়নেঃ ICTSYLHET